ওবায়দুর রহমান অভির ঈদ-উল-ফিতর উপল­ক্ষে প্রতিবন্ধি ও গরিবদের মাঝে হুইল চেয়ার ও পোশাক বিতরণ

সাভার সিটি সেন্টার দোকান মালিক ও ব্যবসায়ী কল্যাণ সমিতির সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুর রহমান অভি। প্রত্যেকের মাপমতো পছন্দের ঈদ উপহার তুলে দিলেন গরিব পঙ্ঘু ও অসহায় দের মাঝে ।সাথে মনের মতো ইফতারের আযোজন করলেন।

মঙ্গলবার সাভার সিটি সেন্টারের ১২ তালায় এমন ব্যতিক্রমী ইফতার,পোশাক ও মাপমত ঈদ বস্ত্র উপহার দিলেন ব্যবসায়ী কল্যাণ সমিতির সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুর রহমান অভি ।

এ ধরনের অনন্য এক অনুষ্ঠানের সাক্ষী হতে পেরে গর্বিত অতিথিরাও। তাদের অনেকেরই প্রশংসায় ভাসলেন অনুষ্ঠানের আয়োজন সাভার সিটি সেন্টার দোকান মালিক ও ব্যবসায়ী কল্যাণ সমিতির সাধারণ সম্পাদক ওবাইদুর রহমান অভি।
এমন ব্যতিক্রমী আয়োজনের আমন্ত্রণ পেয়ে অনুষ্ঠানে উপস্থিত হয়ে ছিলেন সাভার পৌরসভার মেয়র ও সাভার পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ্ব আব্দুল গনি, সাধারণ সম্পাদক,প্যানেল মেয়র নজরুল ইসলাম মানিক মোল্লা সহ সাভারে সিটি সেন্টার দোকান মালিক ও ব্যবসায়ী কল্যাণ সমিতির সভাপতি ওমর আলী পালোয়ান, সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুর রহমান অভিসহ ব্যবসায়ী নেতৃবৃন্দ ছাড়াও উপস্থিত ছিলেন, সাভার প্রেসক্লাবের সভাপতি ও দৈনিক ফুলকি সম্পাদক নাজমুস সাকিব, সাধারণ সম্পাদক ও দৈনিক সমকালের স্টাফ রিপোর্টার গোবিন্দ আচার্য্য, সাভার প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি ও দৈনিক ইত্তেফাকের স্টাফ রিপোর্টার তুহিন খান, সাবেক সভাপতি জাভেদ মোস্তফা, সাভার মিডিয়া ক্লাবের সভাপতি,এনটিভির সিনিয়র রিপোর্টার ও এনাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক জাহিদুর রহমান, মানবজমিনের স্টাফ রিপোর্টার হাফিজ উদ্দিন, সাপ্তাহিক নিউজ গার্ডেন সম্পাদক ওমর ফারুক, পোড়াবাড়ী সমাজকল্যাণ সংঘের সাধারণ সম্পাদক রমজান আহাম্মেদ।

এ সময় সাভার পৌরসভার মেয়র আলহাজ্ব আব্দুল গনি বলেন, প্রতিবন্ধীদের সাথে ইফতার করতে পেরে আমি নিজেও আনন্দিত। তাদের মাঝে ঈদ উপহার তুলে দিয়ে ওবায়দুর রহমান অভি অসামান্য কাজ করেছেন।

সাভার পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও পৌরসভার প্যানেল মেয়র নজরুল ইসলাম মানিক মোল্লা জানান, সমাজের সুবিধাবঞ্চিত এবং অনগ্রসর এসব প্রতিবন্ধীদের মাঝে ঈদের আগে ঈদ উপহার হিসেবে মূল্যবান জামা কাপড় তুলে দেয়াটা নিঃসন্দেহে মানবতার বড় উদাহরণ।

সাভার মিডিয়া ক্লাবের সভাপতি ও এনটিভির সিনিয়র রিপোর্টার ও এনাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক জাহিদুর রহমান জানান, সত্যিই আয়োজনটি এক কথায় অসাধারণ এবং ব্যতিক্রম।

এপ্রসঙ্গে তিনি আরো বলেন একজন ব্যবসায়ী নেতা হিসেবে ওবায়দুর রহমান অভির এই প্রয়াস অন্যান্যদের জন্য অনুকরণীয় এবং নিঃসন্দেহে অনুসরণ- যোগ করেন সাংবাদিক জাহিদুর রহমান।

গেল রমজানেও ব্যতিক্রমি কর্মসূচির মাধ্যমে নিজেকে আলোচনায় তুলে এনেছিলেন ব্যবসায়ী নেতা ওবায়দুর রহমান অভি। সেবারও ইফতার আয়োজন শেষে প্রতিবন্ধীদের মাঝে তুলে দিয়েছিলেন হুইল চেয়ার।

কেবল একজন সফল ব্যবসায়ী হিসেবে নয় ওবায়দুর রহমান অভি প্রশাসনের চোখে সজ্জন ব্যক্তি হিসেবে পরিচিত।

মানবিক উন্নয়ন থেকে সমাজ সেবা মূলক যে কোনো ধরনের উন্নয়ন কাজে তাকে দেখা যায় সবার আগে।সব সময়।

ওবায়দুর রহমান অভি জানান,আমি যা করি একান্ত নিজস্ব মানবিক মূল্যবোধ থেকেই তা করার চেষ্টা করি। আসলে জামা কাপড় তো এক অর্থে খুবই সামান্য। কিন্তু ঈদের আনন্দ ভাগাভাগি করতে গিয়ে সমাজের বিশেষ চাহিদা সম্পন্ন ও পিছিয়ে পড়া প্রতিবন্ধী এই শিশু,কিশোর,তরুন তরুনীর চোখে মুখে আমি যে আনন্দের ঝিলিক দেখেছি তা সত্যিই অসামান্য।

মানবতা চেতনায় এমন কর্মকান্ড আলো হয়ে ছড়িয়ে পড়ুক সমাজের সর্বত্র। জয় হোক মানবতার। জয় হোক এই মানবিক কার্যক্রমের।