রাজশাহীতে নতুন মাদক ট্যাপেন্ডাডল ট্যাবলেট জব্দ করলো আরএমপি পুলিশ

সৌমেন মন্ডল, রাজশাহী ব্যুরোঃ রাজশাহীতে বিপুল পরিমাণ নতুন মাদক ‘ট্যাপেন্টাডল’ ট্যাবলেট জব্দ করেছে পুলিশ। এ সময় রুবেল হোসেন (৩০) নামে এক যুবককে গ্রেপ্তারও করা হয়েছে। রুবেলের বাড়ি রাজশাহীর পবা উপজেলার চর মাজারদিয়া গ্রামে।

এটি ভারতীয় সীমান্ত সংলগ্ন গ্রাম। পুলিশ বলছে, বিপুল পরিমাণ এই ট্যাবলেট ভারতে পাচারের জন্য পদ্মা পার করে চরমাজারদিয়া সীমান্তে নিয়ে যাওয়া হচ্ছিল। এ সময় পদ্মার এপারে রাজশাহীর বসরি এলাকার আইবাঁধ থেকে ট্যাপেন্টাডলসহ রুবেলকে আটক করা হয়।

শনিবার বিকাল ৪টার দিকে রাজশাহী নগরীর কাশিয়াডাঙ্গা থানা পুলিশ এ অভিযান চালায়। পরে রোববার দুপুরে এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে রাজশাহী মহানগর পুলিশের (আরএমপি) মুখপাত্র গোলাম রুহুল কুদ্দুস এ তথ্য জানিয়েছেন।

তিনি জানান, রুবেলের কাছ থেকে ১১ হাজার ২০০ পিস নিষিদ্ধ ট্যাবলেট ট্যাপেন্টাডল উদ্ধার করা হয়েছে। এর মূল্য ২১ লাখ টাকা। এ ঘটনায় রুবেলের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। রুবেলের বাবার নাম আবদুল আজিজ।
উল্লেখ্য, ট্যাপেন্টাডল দেখতে ইয়াবার মতো। কিন্তু ইয়াবা নয়। এটি ব্যথানাশক ওষুধ। এই ট্যাবলেটই এখন ব্যবহৃত হচ্ছে ইয়াবা আর হেরোইনের বিকল্প হিসেবে। গুঁড়ো করে ইয়াবা আর হেরোইনের মতো সেবন করছেন মাদকসেবীরা। মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের প্রস্তাব আর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ফার্মেসি বিভাগের সুপারিশের ভিত্তিতে গত ৯ জুন সরকার ট্যাপেন্টাডল ট্যাবলেট নিষিদ্ধ করে। এটিকে ‘খ’ শ্রেণির মাদকদ্রব্য হিসেবে তফসিলভুক্ত করা হয়েছে।