সাতক্ষীরা-২ আসনের ধানের শীষের প্রার্থী জামায়াত নেতা মুহাদ্দিস আব্দুল খালেক ভোট বর্জনের ঘোষণা দিয়েছেন

ভোটারদের কেন্দ্রে প্রবেশ করতে না দেওয়া, ইভিএমে ফিংগার প্রিন্ট নিয়ে বাটন চেপে চূড়ান্ত ভোট দেওয়া, কর্মী-সমর্থকদের মারধর ও ভোটকেন্দ্র দখলের অভিযোগে সাতক্ষীরা-২ (সদর উপজেলা) আসনের ধানের শীষের প্রার্থী জামায়াত নেতা মুহাদ্দিস আব্দুল খালেক ভোট বর্জনের ঘোষণা দিয়েছেন।

রোববার (৩০ ডিসেম্বর) দুপুর সোয়া ১টায় কারাগারে থাকা জামায়াত নেতা মুহাদ্দিস আব্দুল খালেকের পক্ষে জেলা জাতায়াতের প্রচার সম্পাদক মাওলানা আজিজুর রহমান ভোট বর্জনের ঘোষণা দেন।

মাওলানা আজিজুর রহমান অভিযোগ করে সাংবাদিকদের  বলেন, ‘প্রত্যেকটি ভোটকেন্দ্র ছাত্রলীগ-যুবলীগের ক্যাডাররা দখল করে ভোটারদের ফিংগার প্রিন্ট নিয়ে নিজেরাই বাটন চেপে ভোট দিচ্ছে। অনেক কেন্দ্রে ভোটারদের ঢুকতেই দেওয়া হচ্ছে না। কর্মী-সমর্থকদের মারধর ও ভোটকেন্দ্র দখল করা হয়েছে।’

এজন্য দলীয়ভাবে ভোট বর্জনের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলেও জানান তিনি।