সাভার পৌরসভা নির্বাচনে প্রার্থীদের গণসংযোগ আর প্রচার-প্রচারণায় জমে উঠছে নির্বাচন ।

বিপ্লব,সাভারঃ আসন্ন সাভার পৌরসভা নির্বাচনে প্রার্থীদের গণসংযোগ আর প্রচার-প্রচারণায় জমে উঠছে নির্বাচন ।

প্রতিশ্র“তির ফুলঝুরি নিয়ে প্রার্থীরা ছুটছেন ভোটারের দ্বারে দ্বারে। প্রচার প্রচারনায় মাদক, সন্ত্রাস, ইভটিজিং, রাস্তাঘাট সহ বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কাজের বিষয়ে গুরুত্ব দেয়া ও পরিছন্ন সাভারকে আধুনিক হিসেবে গড়ার তোলার প্রতিশ্র“তি দিচ্ছেন প্রার্থীরা।প্রত্যেকেই নির্বাচনে জয়ের ব্যাপারে শতভাগ আশাবাদি। আর ভোটাররা বলছেন, সৎ ও যোগ্য প্রার্থীকেই বেছে নেবেন তাহারা ।পৌরসভার রাস্তাঘাট, অলিগলি ও পাড়া-মহল­ায় এখন মিছিল আর স্লোগানে মুখরিত হয়ে উঠেছে।ব্যানার-ফেস্টুনে ছেয়ে গেছে পুরো সাভার পৌর এলাকা ।

চায়ের দোকান থেকে শুরু করে বসত বাড়িতেও এখন আলোচনার প্রধান বিষয় নির্বাচনকে গিরে । প্রার্থীরা ভোট চেয়ে চষে বেড়াচ্ছেন তাদের নির্বাচনী এলাকা । সাভার পৌরসভা নির্বাচনে মেয়র পদে আওয়ামী লীগ, বিএনপি ও ইসলামী আন্দোনের মনোনীত প্রার্থীসহ মোট তিন জন মেয়র পদপ্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন

তবে নির্বাচনের মাঠে প্রচার প্রচারনায় আওয়ামী লীগ মনোনীত মেয়র প্রার্থী হাজী আঃ গনি ছাড়া দেখা যাচ্ছেনা ইসলামী আন্দোলন মনোনীত প্রার্থী আলহাজ্ব মোঃ মোশাররফ হোসেন ও বিএনপির মনোনীত প্রার্থী রেফাত উল্লাকে ।

আওয়ামী লীগ মনোনীত মেয়র প্রার্থী হাজী আঃ গনি বলেন,মেয়র নির্বাচিত হলে অগ্রাধিকার ভিত্তিতে পৌরসভার সমস্যাগুলো পর্যায়ক্রমে সমাধানের ব্যবস্থা করা হবে।পৌরসভার বর্জ্য ব্যবস্থাপনা এবং যানজট নিরসনসহ মৌলিক সমস্যাগুলো সমাধানের মাধ্যমে আধুনিক পৌরসভা গঠনের প্রতিশ্র“তি দিচ্ছেন তিনি ।

অন্যদিকে বিএনপির মনোনীত প্রার্থী আলহাজ্ব রেয়াত উল­াহ বলেন , পৌর নির্বাচনে ভোটারদের কাছ থেকে ব্যাপক সারা পাচ্ছেন তিনি। তবে অভিযোগ করেন, আওয়ামী লীগ কর্মীরা বিভিন্ন জায়গায় তার ব্যানার ও পোস্টার ছিড়ে ফেলছেন। বাধা দিচ্ছেন প্রচার প্রাচারনায়।

এছাড়াও নিজ নিজ প্রতীকে ভোট প্রার্থনা করে পাড়া-মহল­া চষে বেড়াচ্ছেন কাউন্সিলর প্রার্থীরাও। শতভাগ বিজয়ের ব্যাপারে আশা ব্যাক্তকরে সবাই নিজ নিজ প্রতীকে ভোট দিতে ভোটারদের কাছে অনুরোধ জানান।

আগামী ১৬ই জানুয়ারী ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিনের (ইভিএম) মাধ্যমে সাভার পৌরসভা নির্বাচনে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। সাভার পৌরসভায় মোট ভোটার রয়েছেন ১ লক্ষ ৮৮ হাজার ৮৮ জন। এর মধ্যে পুরুষ ভোটার রয়েছেন ৯৪ হাজার ৫৮৭ জন ও মহিলা ৯৩ হাজার ৫০১ জন। মোট ৮৪ টি কেন্দ্রে সকাল ৯ টা থেকে বিকাল চারটা ভোট গ্রহন অনূষ্ঠিত হবে।