সিংগাইরে পাবজি খেলাকে কেন্দ্র করে প্রাণ গেল কিশোরের

স্টাফ রিপোর্টারঃ মানিকগঞ্জ জেলার সিংগাইর উপজেলার শায়েস্তা ইউনিয়ন এ পাবজি খেলার আইডিকে কেন্দ্র করে নিজেদের মধ্যে দ্বন্দ্বে খুন হলো রাজু (১৩) নামের এক কিশোর।

ভিকটিম নিহত রাজু উপজেলার শায়েস্তা ইউনিয়নের দক্ষিণ সাহরাইল গ্রামের মোসলেম মিস্ত্রী ওরফে মোছার ছেলে।

খুনের প্রধান অভিযুক্ত আসামি একই এলাকার রাজু কোরাইশীর ছেলে আলিফকে (১৬) কে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। শনিবার (১৬ অক্টোবর) সিংগাইর থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ শফিকুল ইসলাম মোল্যা গ্রেফতারের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

অফিসার ইনচার্জ, মোঃ শফিকুল ইসলাম মোল্লা স্থানীয়দের বলেন, পাবজি খেলাকে কেন্দ্র করে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার দিকে রাজুকে বাড়ি থেকে ডেকে নেয় আলিফ। পরে তাকে কৌশলে নিলাম্বরপট্রি এলাকার রুপারচর বাজারের কালিগঙ্গা নদীর পাড়ে কাশবনের ভেতর নিয়ে যায় এবং মুখে শার্ট ডুকিয়ে মাথা এবং বুকে ইট দিয়ে আঘাত করতে থাকে। এক পর্যায় রাজুকে মৃত ভেবে আলিফ ঘটনাস্থল ত্যাগ করে।
কাশবনের ভেতর থেকে গোঙ্গানির শব্দ পেয়ে স্থানীয়রা তাকে গুরুতর আহত অবস্থায় উদ্ধার করে সাহরাইল ইব্রাহিম মেমোরিয়াল হাসপাতালে নিয়ে যায়। সেখানে নেওয়ার পর অবস্থা আশংকাজনক হওয়ায় রাতেই সাভারস্থ এনাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। চিকিৎসাধীন অবস্থায় আজ শনিবার ভোর রাতে রাজুর মৃত্য হয়।

মৃত্যর খবর পেয়ে স্থানীয় বিক্ষুব্ধ জনতা অভিযুক্তর বাড়ি ঘেরাও করে। বিষয়টি থানা পুলিশ জানতে পেরে ঘটনাস্থলে এসে উপজেলা চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা মুশফিকুর রহমান খান হান্নান, সিংগাইর পৌর মেয়র আবু নাঈম মোঃ বাশার, উপজেলা আওয়ামী লীগ এর নের্তৃত্ববৃন্দ সহ স্থানীয় রাজনৈতিক ও সামাজিক ব্যক্তিবর্গের সহয়তায় পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনেন।

অভিযুক্ত আলিফকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে এবং মামলা প্রস্তুতি চলছে।