সুন্দরগঞ্জে নববর্ষ উদযাপন

বাংলা নববর্ষ উদযাপনে বাঙলা সংস্কৃতির রঙে ঢঙে মাতোয়ারা হয়ে উঠেছে গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জ ।

বছরের প্রথম সকালে উদিত সূর্যের আলো চারদিক ছড়িয়ে পড়ার সাথে সাথেই ঢাক-ঢোলের আওয়াজে প্রকম্পিত হয়ে উঠে শহরের আশপাশ। ছড়িয়ে পড়ে পহেলা বৈশাখের ডাকে সুখ-শান্তি-সমৃদ্ধির বার্তায় বাংলাদেশকে এগিয়ে নেবার আহ্বান।

রোববার পহেলা বৈশাখে সকাল থেকেই উপজেলায় বাঙালী সংস্কৃতির প্রাণের উৎসব বাঙলা বর্ষবরণে মেতে উঠে ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে ছোট-বড় সব বয়সী মানুষ।

সুন্দরগঞ্জ উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে বের হয় বর্ণিল শোভাযাত্রা।

এছাড়াও উপজেলার বিভিন্ন সরকারি বেসরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ও সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠন পৃথক পৃথক র‌্যালী ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করে।

এদিকে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর কঠোর নিরাপত্তা বলয়ের মধ্যেও বর্ষবরণে মাতোয়ারা ছিল সবাই।

‘এসো হে বৈশাখ- এসো এসো’ গানে গানে পহেলা বৈশাখকে বরণ করে নেয়ার পাশাপাশি পুরো উপজেলা জুড়ে চলছে রঙের খেলা। পাড়া মহল্লায় রঙ খেলার দেশীয় সংস্কৃতির বহিঃপ্রকাশে বিভিন্ন স্থানে সাংস্কৃতিক আয়োজনে তুলে ধরার হয় নাচে গানে ভাওয়াইয়া, জারি-সারি, ভাটিয়ালি ও বাউল সঙ্গীত।

গ্রামগঞ্জে নাগর দোলা, লাঠি খেলা, হা-ডু-ডু, ঘুড়ি উৎসবসহ বৈচিত্রময় সব আয়োজন করা হয় ।কেউ কেউ রঙ তুলির আলপনায় বৈশাখের শুভেচ্ছা বিলিয়ে দিচ্ছে গ্রামের মেঠোপথ থেকে শহুরের দিকে। সবমিলে যেন উত্তরের সংস্কৃতি সমৃদ্ধ প্রাচীনতম এই সুন্দরগঞ্জ সহ পুরো গাইবান্ধা জেলা বৈশাখের রঙে রঙিন হয়ে উঠেছে।